পেনশনভোগী মহিলাদের নামাজ ঘরের শুভ উদ্বোধন হল আজ

0
396


আজকের সোনারগাঁওঃ বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টায় উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তার কার্যালয়, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জের উদ্যোগে ‘ওয়ান স্টপ পেনশন সার্ভিস ডেলিভারী কেন্দ্রে পেনশনারদের মধ্যে বিনা মূল্যে ঔষধ বিতরণ ও পেনশনারদের ওয়েটিং রুম এবং মহিলা নামাজ ঘরের শুভ উদ্বোধন’ করেন প্রধান অতিথি কে এম সিরাজুল মুনীর, ডিভিশনার কন্ট্রোলার অব একাউন্টস, ঢাকা ডিভিশন, ঢাকা এবং সভাপতি মো: শাহীনুর ইসলাম, উপাজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জ। অনুষ্ঠান ব্যবস্থাপনা ও পরিচালনা করেন  মো: আনোয়ার হোসেন, উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জ।

উক্ত অনুষ্ঠানে পেনশনারদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক মোঃ সিরাজুল ইসলাম, তিনি বলেন ইতিপূর্বে আমরা এত সুন্দর ও মনোরম পরিবেশে পেনশন উত্তোলন করিতে পারিতাম না।  মো: আনোয়ার হোসেন, উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা, সোনারগাঁ, নারায়ণগঞ্জ দায়িত্ব নেয়ার পর থেকে পরিষদের সাথে যোগাযোগ করে পর্যায়ক্রমে পেনশানারদের ওয়েটিং রুম, মহিলা নামাজ ঘর, বিশুদ্ধ খাবার পানি সরবরাহ, বিনোদনের জন্য কালার টিভি, পর্যাপ্ত বাথরুমের সুবিধা, ব্যাংকিং সুবিধাসহ বিনা মুল্যে ঔষধ বিতরণের ব্যবস্থা গ্রহণসহ সকল সেবা একই স্থান থেকে পাচ্ছি যা সত্যিই প্রসংশনীয়।

সভাপতি জনাব শাহীনুর ইসলাম বলেন, পেনশনারদের উদ্দেশ্যে বলেন, ইতোপূর্বে আপনারা ব্যাংকে দাঁড়িয়ে থেকে পেনশনের টাকা উত্তোলন করতেন। ব্যাংকে কোন বসার ব্যবস্থা ছিল না, বাথরুমের সুযোগ সুবিধা ছিল না। কিন্তু এখানে বসে আপনারা ব্যাংকিং সুবিধাসহ যাবতীয় সুবিধা ভোগ করতে পারছেন। এখানেওয়ান ষ্টপ পেনশন সার্ভিস ডেলিভারী চালু হয়েছে শুধু আপনারদের জন্যই। ওয়ান ষ্টপ পেনশন সার্ভিস ডেলিভারী কেন্দ্রে আপনাদের জন্য বিনা মূল্যে ঔষধেরও ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে যার সুবিধা আপনারাই ভোগ করবেন। আপনাদের জন্য আরও একটি সুখবর হচ্ছে অচিরেই একটি প্রবীণ সংঘ গঠন করে আপনাদের একসাথে বসে মূল্যবান আলোচনা করার সুযোগ সৃষ্টি করা হবে।

প্রধান অতিথি জনাব সিরাজুল মুনীর মুক্তিযোদ্ধা পেনশনারদের উদ্দেশ্যে বলেন, আপনারা দেশ স্বাধীন করেছেন বলেই আজ আমরা উর্ধতন কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করছি। আপনাদেরকে সুন্দর ও মনোরম পরিবেশে পেনশন দেয়া আমাদের কর্তব্য ও দায়িত্ব। ব্যাংকিং সুবিধার পাশাপাশি ওয়ান ষ্টপ ডেলিভারী কেন্দ্রে বিনা মূল্যে ঔষধ বিতরণ উদ্বোধন করতে পেরে আমি নিজেকে ধন্য মনে করছি। এ রকম সুন্দর পরিবেশ সৃষ্টির জন্য তিনি উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা হিসাব কর্মকর্তাকে ধন্যবাদ জানান।